জেনে নিন দ্রুত ঘুমিয়ে পড়ার কিছু পদ্ধতি

sleepবিছানায় শোয়ার সাথে সাথে বা কিছু সময়ের মধ্যেই চোখ জুড়ে ঘুম নেমে আসুক এটা আমরা সবাই চাই। কিন্তু দেখা যায় রাত ২টা-৩টা বেজে গেছে কিন্তু চোখে ঘুম নেই। বিছানায় এপাশ ওপাশ করেই ভোর হয়ে যাচ্ছে, আর ঘুমহীন বা স্বল্প ঘুমের ফলে সারাদিনের কাজের উপরও পড়ছে এর প্রভাব। তাই জানাচ্ছি কিছু পদ্ধতি যা অনুসরণ করলে বিছানায় শোয়ার কিছুক্ষণের মধ্যেই ঘুম নেমে আসবে আপনার দু’চোখ জুড়ে।

১. নিজেকে জানান ঘুমের প্রয়োজনীয়তা (tell yourself why you need to sleep):

দ্রুত ঘুমিয়ে পড়ার জন্য প্রথমেই নিজেকে অর্থাৎ আপনার মস্তিষ্ককে জানান কেন দ্রুত ঘুমিয়ে পড়া প্রয়োজন। নিজের সাথে মনে মনে কথা বলুন। বলুন “আমার দ্রুত ঘুমিয়ে পড়া প্রয়োজন কারণ কাল আমার ক্লাস আছে/ অফিস আছে/ চাকরির ইন্টারভিউ আছে” ইত্যাদি।

২. শোবার ঘর ঠাণ্ডা রাখুন (make your bedroom cool):

শোবার ঘরের তাপমাত্রা যাতে ঠাণ্ডা থাকে সেদিকে নজর দিন। তবে অতিরিক্ত ঠাণ্ডা ঘর বা গরম ঘরে সহজে ঘুম আসে না। তাপমাত্রা যেন আরামদায়ক হয় সেদিকে লক্ষ্য রাখুন।

৩. ঘুমকে আমন্ত্রণ জানান, জোর করবেন না (invite sleep, but never plead):

ঘুমকে আমন্ত্রণ জানান। কিন্তু ঘুমিয়ে পড়ার জন্য নিজেকে জোর করবেন না। ঘড়ির দিকে তাকিয়ে ‘কেন ঘুম আসছে না’ এ জাতীয় চিন্তা বাদ দিয়ে নিজেকে শান্ত এবং সুস্থির রাখুন।

৪. কল্পনায় নিজেকে নিয়ে যান সমুদ্রতীরে (think yourself standing in a beach):

কল্পনায় নিজেকে শান্ত সমুদ্রতীরে নিয়ে যান, যেখানে ধীরে ধীরে ছোট ঢেউ আছড়ে পড়ছে, মৃদু হাওয়া বইছে। এমন কল্পনা আপনার মনকে শান্ত করবে। ফলে ধীরে ধীরে ঘুম নেমে আসবে দু’চোখে।

৫. নিজের উপর আস্থা রাখুন (believe in yourself):

নিজের উপর আস্থা রাখুন যে, যখনই চান তখনই ঘুমিয়ে পড়ার ক্ষমতা আপনার আছে। প্রতিদিন এই আত্মবিশ্বাস চর্চা করলে একসময় তা সত্যে পরিণত হবে এবং বিছানায় শোয়া মাত্রই ঘুমিয়ে পড়ার ক্ষমতা তৈরি হবে আপনার মধ্যে।

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি।পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার, গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।

Leave a Reply