কিভাবে ব্লগের নাম নির্বাচন করবেন

domain nameএকটি সফল এবং জনপ্রিয় ব্লগের অন্যতম পূর্বশর্ত হচ্ছে এর নাম। ব্লগের নামকরণ নিয়ে দ্বিধাগ্রস্ত থাকেন অনেকেই। কারণ উপযুক্ত নাম ছাড়া একটি ব্লগ কখনোই সাফল্যের মুখ দেখতে পারে না। তাই ব্লগের নামকরণের আগেই নিচের বিষয়গুলো দেখে নিনঃ

১. সহজ, সংক্ষিপ্ত এবং বিষয়বস্তুর সাথে সামঞ্জস্যপূর্ণঃ

ব্লগের নাম যতটা সম্ভব সহজ এবং সংক্ষিপ্ত রাখুন। কঠিন নাম পাঠক মনে রাখে না। আপনার মূল উদ্দেশ্য যদি ব্লগ থেকে অর্থ উপার্জন হয়ে থাকে তাহলে সহজ এবং সংক্ষিপ্ত নামের বিকল্প নেই। ব্লগের বিষয়বস্তুর সাথে নামের যেন মিল থাকে এই ব্যাপারে অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে।

২. সম্ভাব্য পাঠক বিবেচনা করুনঃ

আপনি মূলত কাদের জন্য ব্লগ লিখবেন তা বিবেচনা করলে নামকরণ অনেকটাই সহজ হবে। ব্লগের মূল পাঠক পুরুষ হতে পারে নাকি নারী, ব্লগের লেখাগুলো বিনোদনমূলক নাকি তথ্যভিত্তিক হবে এগুলো আগেই নির্ধারণ করে নিন। মনে করুন আপনি একটি বিনোদনমূলক ব্লগ তৈরির চিন্তা করছেন, সেক্ষেত্রে ব্লগের নাম এমনভাবে নির্ধারণ করতে হবে যাতে তা চোখে পড়া মাত্রই পাঠক বুঝতে পারেন এই ব্লগে মজার কিছু আছে।

৩. নিজের সৃজনশীলতাকে কাজে লাগানঃ

একটি শব্দযুক্ত বেশিরভাগ ডোমেইন পূর্বেই কেউ না কেউ নিয়ে নিয়েছেন। তাই ব্লগের নাম নির্বাচনের সময় আপনাকে সৃজনশীলতার পরিচয় দিতে হবে। দুটি শব্দ একসাথে যোগ করে (যেমনঃ YouTube), বা শব্দ গুচ্ছ (Phrase) ব্যবহার করে (যেমনঃ Six Apart) , দুটো ভিন্ন শব্দের প্রথম অংশ একসাথে যোগ করে (যেমনঃ Microsoft) ইত্যাদি ভাবে ব্লগের নাম নির্বাচন করা যায়।

৪. আপনার প্রতিযোগী ব্লগগুলো পর্যবেক্ষণ করুনঃ

আপনার ব্লগের মত একই বিষয়ে নির্মিত অন্যান্য যে ব্লগগুলো ইতিমধ্যেই চলছে তাদের নাম পর্যবেক্ষণ করুন। দেখুন তারা কি ধরণের নাম নির্বাচন করেছে, ব্লগের বিষয়বস্তুর সাথে নামগুলো সামঞ্জস্যপূর্ণ কি না তা যাচাই করুন। এবং আপনি যে নাম রাখতে চাচ্ছেন তার সাথে অন্য ব্লগের নাম মিলে যাচ্ছে কিনা তা খেয়াল রাখুন।

৫. সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে নজর দিনঃ

বর্তমানে ব্লগে পাঠক আকর্ষণের অন্যতম উৎস সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো। ব্লগ তৈরি করার পর সে নামে ফেসবুক বা টুইটারে একটি ফ্যান পেজ খোলা এবং সে পেজে ব্লগের আকর্ষণীয় বিষয়গুলো সম্পর্কে লেখা এবং লিঙ্ক যোগ করা অত্যন্ত প্রয়োজন। তাই যে নামে ফ্যান পেজ তৈরি করবেন তা আগেই অন্য কেউ ব্যবহার করে ফেলেছে কি না সেটা দেখে নিন। পেজের নাম পূর্বেই ব্যবহৃত হয়ে থাকলে, ব্লগের নাম পরিবর্তনের বিষয়টি আপনাকে বিবেচনা করতে হবে।

৬. ব্লগ এবং ডোমেইন নেইম একই হতে হবেঃ

যেহেতু চাহিদা মত ডোমেইন নেম পাওয়া কষ্টসাধ্য, তাই অনেকেই যে কোন একটি ডোমেইন নেম বেছে নেন, এবং ব্লগের এমন কোন নাম দেন যার সাথে ডোমেইন নেমের কোন মিল নেই। যখন পাঠক দেখবে ডোমেইন নেমের সাথে ব্লগের নামের মিল নেই, তখন খুব স্বাভাবিক ভাবেই আপনার ব্লগের প্রতি তাদের আগ্রহ কমে যাবে। পরবর্তীতে পাঠক খুঁজেই পাবে না আপনার ব্লগটি। তাই ডোমেইন নেম এবং ব্লগের নাম যাতে একই হয় এ ব্যাপারে দৃষ্টি রাখুন।
ব্লগ নিয়ে পরামর্শ.কম এর আরও লেখা পড়ুনঃ
১. সফল ব্লগ শুরু করার ৭টি কৌশল
২. একটি জনপ্রিয় ব্লগ পোস্ট লেখার জন্য যে বিষয়গুলো অবশ্যই জানা প্রয়োজন
৩. ব্লগের লেখা প্রকাশ করার আগে যে বিষয়গুলো দেখে নেয়া দরকার

লেখাটি সম্পর্কে আপনার মতামত কমেন্টের মাধ্যমে জানাতে অনুরোধ করছি। পরামর্শ.কম এর অন্যান্য প্রকাশনার আপডেট পেতে যোগ দিন ফেইসবুক, টুইটার, গুগল প্লাসে অথবা নিবন্ধন করুন ইমেইলে।

Leave a Reply